১৮৪ মিনিট আগের আপডেট; রাত ৫:৩০; শনিবার ; ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯

চকরিয়া উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকদলের সম্মেলনে এড.শামীম আরা স্বপ্না

নিজস্ব প্রতিবেদক, চকরিয়া ৩০ নভেম্বর ২০১৯, ২৩:৩১

চকরিয়া উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকদলের দ্বি-বার্ষিক সন্মেলন ও কাউন্সিল স্থানীয় এ.টি.এন পার্ক কমিউনিটি সেন্টার মিলনায়তনে শনিবার বিকালে অনুষ্ঠিত হয়েছে। চকরিয়া উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকদলের মহিউদ্দিন পুতু’র সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব নুরুল আবছার রিয়াদের  উপস্থাপনায় সম্মেলনে প্রধান অতিথি ছিলেন কক্সবাজার জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট শামীম আরা স্বপ্না। সম্মেলনের শুরুতে উদ্বোধন ঘোষণা করেন কক্সবাজার জেলা স্বেচ্ছাসেবকদলের সভাপতি অধ্যাপক মো.আজিজুর রহমান।

সম্মেলনে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপির সহসভাপতি এনামুল হক, জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি ও চকরিয়া উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক আলহাজ্ব মোঃ মিজানুর রহমান চৌধুরী খোকন মিয়া, চকরিয়া উপজেলা বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-আহবায়ক অ্যাডভোকেট ফখরুদ্দিন ফরায়েজী।

সম্মেলনে প্রধান বক্তা ছিলেন কক্সবাজার জেলা স্বেচ্ছাসেবকদলের সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট মোহাম্মদ ইউনুছ, কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবকদলের ক্ষুদ্র কুটির সম্পাদক ফরিদ মিয়া আরমান। বিশেষ বক্তা ছিলেন কক্সবাজার জেলা স্বেচ্ছাসেবকদলের সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট মীর মোশারফ হোসেন টিটু, বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন জেলা স্বেচ্ছাসেবকদলের যুগ্ম সম্পাদক আবছার কামাল, যুগ্ম সম্পাদক হাজী আবদুর রহিম, উপজেলা যুবদলের সাবেক আহবায়ক ইব্রাহিম খলিল কাকন, উপজেলা শ্রমিকদলের আহবায়ক এসএ জয়নাল আবেদিন, চকরিয়া পৌরসভা যুবদলের সাবেক আহবায়ক মাহমুদুল করিম, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকদলের যুগ্ম আহবায়ক কামরুল হাসান জাস্ট্রিস, উপজেলা ছাত্রদলের সাবেক আহবায়ক মিনহাজ উদ্দিন, পেকুয়া উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকদলের সভাপতি আহসান উল্লাহ, চকরিয়া পৌরসভা স্বেচ্ছাসেবকদলের সাবেক আহবায়ক এইচএম নুরুল আমিন, মাতামুহুরী স্বেচ্ছাসেবকদলের আহবায়ক শহিদুল ইসলাম মানিক।

সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন খুটাখালী বিএনপি সভাপতি জাফর আহমদ, ফাসিয়াখালী সভাপতি শাহ আলম সিকদার, হারবাং সভাপতি ছাবের আহমদ (ছাবুল হক), চিরিঙ্গা ইউনিয়ন সভাপতি আবদুল হাফেজ মেম্বার, লক্ষ্যারচর সভাপতি আলহাজ কামাল উদ্দিন, মানিকপুর সভাপতি আতাহার ইকবাল, সুরাজপুর সভাপতি মাওলানা জমির উদ্দিন, কৈয়ারবিল সভাপতি একে জিল্লুর রহমান, উত্তর হারবাং সভাপতি নুর উল্লাহ, কাকারা সাধারণ সম্পাদক আশেক উদ্দিন, লক্ষ্যারচর সাধারণ সম্পাদক জসিম উদ্দিন, চিরিঙ্গা সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ মেম্বার, ফাসিয়াখালী সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, মোস্তাফিজুর রহমান, হারবাং সাধারণ সম্পাদক আনোয়ারুল আজিম, সুরাজপুর সাধারণ সম্পাদক সানাউল্লাহ, বিএনপি নেতা জসিম উদ্দিন, শরিফুল আলম, আকতার আহমদ, জহির আহমদ, আজিজুর রহমান, নাজেম উদ্দিন, ফরিদুল আলম, সেলিম রেজা, উপজেলা যুবদলের মো.জকরিয়া, আনিসুর রহমান, আরিফুল ইসলাম, আবদুল ওয়াদুদ, মৌলভী এহেসানুল করিম, আবদুস ছালাম, এডভোকেট মইনুল আমিন ইমু, কামাল উদ্দিন, আবদুল্লাহ আল নোমান, হারুনর রশিদ, আবদুল খালেক, মমতাজ মিয়া, মাইন উদ্দিন, সাহাব উদ্দিন লাল্টু, নাজেম উদ্দিন, জামাল উদ্দিন, আনোয়ার হোসেন, উপজেলা ছাত্রদলের আবদুল্লাহ আল নোমান, ওবাইদুল্লাহ নুর ছিদ্দিকী, হাবিব উল্লাহ মিছবাহ, আবদুল হামিদ, মিলন, পৌরসভা যুবদলের শহীদুল হক, একরামুল হক, জিয়াউদ্দিন বাবুল, জালাল উদ্দিন ছুট্ট, পৌরসভা স্বেচ্ছাসেবকদলের শরিফুল ইসলাম, দিদারুল ইসলাম, কাইছার হামিদ, নুর মোহাম্মদ, সোহেল মাহমুদ, শ্রমিকদল নেতা কাশেম মাহমুদ, জমির উদ্দিন, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকদলের মনিরুল আমিন, নুরুল আবছার আনোয়ার, নুরুল আমিন, মোবারক হোসেন, মো.জোবায়ের, মাস্টার ফখরুল ইসলাম, আবু সিনা আরমান, ইস্কান্দর মীর্জা, কামরুল ইসলাম রুবেল, ছৈয়দ আলম, ছরওয়ার আলম, রিদুয়ানুল হক, হেলাল সিকদার, নুরুল আবছার, আবু তৈয়ব, রাশেদুল ইসলাম, দেলোয়ার হোসেন, জমির উদ্দিন, শাহাব উদ্দিন, মনিরুল ইসলাম, শেফায়েত হোসেন, কুতুব উদ্দিন, মোসলেহ উদ্দিন, মোহাম্মদ মানিক, আতাউল্লাহ তৌফিকসহ চকরিয়া উপজেলার ১৪টি ইউনিয়ন থেকে স্বেচ্ছাসেবকদলের নেতাকর্মীরা মিছিল সহকারে সম্মেলনে অংশ গ্রহন করেন। 

সম্মেলনে প্রধান অতিথি জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট শামীম আরা স্বপ্না বলেছেন, বর্তমান সরকার একটি ব্যর্থ সরকার। সারাদেশে দুর্নীতি, লুটপাট, সন্ত্রাস, দখলবাজী, ক্যাসিনো (জুয়া), আওয়ামী নেতা কর্মীদের নিত্যনৈমিত্তিক ঘটনা হয়ে দাড়িয়েছে। জনগণের সমর্থনে নয়, ভারতে সাথে দেশের স্বার্থ বিরোধী চুক্তি করে ক্ষমতায় টিকে থাকতে চান তাঁরা। 

তিনি বলেন বাংলাদেশে আজ গনতন্ত্র বলতে কিছু নেই, আইনের শাসন নেই। আছে শুধু অপশাসন। সেই কারণে দেশের তিনবারের সফল প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়া আজ বিনাকারণে সাজানো মামলায় কারাভোগ করছেন। তিনি সুষ্ঠ বিচার থেকেও বঞ্চিত হচ্ছেন। জামিন আটকে রেখেছে অবৈধ সরকার। দেশে গনতন্ত্র ও আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত হলেই বেগম জিয়া অবশ্যই সুবিচার পাবেন। তাই নির্বাসিত গনতন্ত্র ও আইনের শাসন ফিরিয়ে আনতে বিএনপির নেতাকর্মীদেরকে ইস্পাত কঠিন আন্দোলনের প্রস্তুতি নিতে হবে। 

শামীম আরা স্বপ্না আরও বলেন, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সাবেক মন্ত্রী সালাহউদ্দিন আহমদের নির্দেশে কক্সবাজার জেলার প্রতিটি জনপদে বিএনপির শক্তিশালী সংগঠন বির্নিমানে সকলস্তরের নেতাকর্মীদের ত্যাগ স্বীকার করতে হবে। সবাইকে সংগঠনের নির্দেশনা মেনে কাজ করতে হবে। 

 


সর্বমোট পাঠক সংখ্যা : ৮২