৯ মিনিট আগের আপডেট; রাত ৪:১৫; বুধবার ; ২১ অক্টোবর ২০২০

ঝিলংজা ইউনিয়নে বিট পুলিশিং কার্যক্রম শুরু

নিজস্ব প্রতিবেদক, কক্সবাজার ১৭ অক্টোবর ২০২০, ১৮:৪৪

পুলিশই জনতা, জনতাই পুলিশ– এই স্লোগান সামনে রেখে কক্সবাজার সদরের ঝিলংজা ইউনিয়নে সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ, মাদক, ইভটিজিং, বাল্যবিবাহ ও যৌতুকমুক্ত সমাজ গড়তে প্রথম বিট পুলিশিং কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে।

শনিবার (১৭ অক্টোবর) ঝিলংজা ইউনিয়নের নিজস্ব ভবনে বিট পুলিশিংয়ের কার্যক্রম উদ্বোধন করেন সদর থানার এস আই ও বিট অফিসার বিভাস সাহা। এ সময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সদর থানার এ এস আই কুদরত এলাহী সজীব, ঝিলংজা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান টিপু সুলতান।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিট অফিসার বিভাস সাহা বলেন, মাদক এবং সন্ত্রাসমুক্ত করার জন্য বাংলাদেশের ইতিহাসে এবার কক্সবাজার জেলায় কর্মরত পুলিশের ১ হাজার ৩৪৭ জন সদস্যকে একযোগে বদলি করা হয়েছে। জনগণের সম্পৃক্ততা ছাড়া সমাজ থেকে অপরাধ নির্মূল করা সম্ভব নয়। 

তিনি আরো বলেন, আমরা যদি একজন ব্যক্তিকে মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ থেকে সরিয়ে আনতে পারি, তবে সেটা হবে সত্যিকারের দেশপ্রেমের কাজ। থানায় নির্ধিদ্বায় সেবা নিতে আসবেন। কারও দ্বারা হয়রানী বা প্রতারণার শিকার হলে জানাবেন, সাথে সাথে অ্যাকশন নেয়া হবে। কারণ পুলিশ আপনাদের সেবা দিতে বদ্ধপরিকর। জনগণকে পুলিশি সেবা নেয়ার জন্য আর থানায় যেতে হবে না।  প্রয়োজনে সেবা দিতে পুলিশ চলে আসবে জনগণের পাশে।

ইউপি চেয়ারম্যান টিপু সুলতান বলেন, সম্প্রসারিত বিট পুলিশিং কার্যক্রম নিঃসন্দেহে সরকারের একটি প্রশংসনীয় পদক্ষেপ। আমি বিশ্বাস করি, এ পদক্ষেপের ফলে জনগণ পুলিশের কাছ থেকে আইনি সহায়তা অতি দ্রুত সময়ের মধ্যে ভোগ করতে পারবে। পুলিশের এ ধরনের উদ্যোগের জন্য ঝিলংজাবাসীর পক্ষ থেকে আইজিপি ড. বেনজীর আহমেদকে শুভেচ্ছা ও আন্তরিক অভিনন্দন জানান ইউপি চেয়ারম্যান।

এসময় পরিষদের সদস্য, আ.লীগ, ছাত্রলীগ, যুবলীগ, সেচ্চাসেবকলীগ, ইমাম-মুয়াজ্জিন, নাগরিক কমিটি, বিভিন্ন সমাজ কমিটি, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি, পেশাজীবি নেতৃবৃন্দ, রাজনৈতিক ও সমাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ এবং সর্বস্তরের নেতারা স্বতঃস্ফূর্তভাবে অংশ নেন।


সর্বমোট পাঠক সংখ্যা : ২৮৪